সিগারেট টানছিলাম, পাশে কেউ গেঞ্জি ধরে টানলো। ঘুরে দেখলাম এক ৭-৮ বছরের একটা মেয়ে।
-দাদা ৫ টাকা দাও না।
-৫ টাকায় কি হবে ?
-ভাত খাবো।
-৫ টাকায় ভাত হয় ??
-অল্প করে খাবো।
-(speechless !!) কত টাকা হলে বেশি করে খাওয়া হবে ?
-৫০ টাকা। ভাত ১০ আর তরকারি ৪০। দেবে ?
-হুম দিতে পারবো।
-এত টাকা দেবে !! (চোখে মুখে বিস্ময়) তাহলে ভাত কিনে দিতে হবে না,একটা অন্য জিনিস দেবে ?
-কি জিনিস ?
-ঐ টাকার চাল কিনে দাও। ঘরে নিয়ে যাবো। মা এর সাথে খাবো।
-বাড়িতে কে কে আছে তোমার ?
-মা বোন আর দাদা । মা হাটতে পারেনা। বোন বাড়ি বাড়ি কাজ করে। দাদা চা এর দোকানে থাকে। আমি ভিক্ষা করি।
- তোমার বাবা ?
-চলে গেছে অনেক আগে, মনে নাই।
-হুম। পড়াশোনা কর না ?
-পড়লে ভিক্ষা করতাম কখন ? খাওয়া জুটবে না।
১ কেজি চাল আর কিছু ডিম কিনে দিয়ে বিদায় নিলাম। ৪ জনের সংসারে একদিন চলে যাবে।
খুব অদ্ভুত ভাবে বেড়ে ওঠে ওরা।খুব অল্প বয়সেই জীবনকে বুঝে নিতে শেখে।
৭ বছরে যথাসম্ভব আমি ক্লাশ “টু” এ পড়তাম। বিকালে ছবি আঁকতাম। অবসরে ওটাই শখ ছিল। নিশ্চিন্তে ছবি আঁকতাম। খাবার জুটবে কোথা থেকে এই চিন্তা অন্তঃত ছিলনা। “পড়লে খাওয়া জুটবে কোথা থেকে” এই ধরণের প্রশ্নও মাথায় আসেনি ।এগুলো ভাবার জন্য বাবা-মা ছিল।
>> ৫ টাকায় আমি তো ছোটবেলায় কলম কিনেছি। আমার শিক্ষার উপকরণ। সে ৫ টাকায় ভাত খোঁজে। তার বেঁচে থাকার উপকরণ। আর যেই সিগারেট টা খাচ্ছিলাম তার দাম দশ টাকা।
পথের ধুলোয় অদ্ভুত ভাবে বেড়ে ওঠার মাঝেও তাদের মধ্যে বিবেকবোধ তৈরী হয়েছে। ৫০ টাকায় হোটেল থেকে ভাত-তরকারি কিনে খাওয়ার থেকে বাড়িতে পঙ্গু মা আর ভাই বোন কে নিয়ে খাওয়া বেশি তৃপ্তিদায়ক সেই বোধও এই ৭-৮ বছরের অশিক্ষিত মেয়ের মাঝে তৈরী হয়েছে।
শিক্ষায়_শুধুমাত্র_বিবেক_বোধ_শেখায়না

এর বয়সে রোজ সকালে আমি ভাবতাম আজ স্কুলে গিয়ে টিফিনে কি খেলব, কার পাশে বসবো, স্যারের কোন হোমওয়ার্ক আছে কিনা।
আর এই মেয়েটা ভাবে রোজ সকালে “কোন রাস্তায় ভিক্ষা করলে বেশি টাকা পাবে” আর ৫০ টাকা আমাদের একদিন মোবাইলে খরচ যায় আর ওদের সবাই মিলে এক বেলা খাওয়া হয়ে যায়।
একই স্রষ্টার সৃষ্টি আমরা দুজনই। দুজনই দুজনের বাবা-মা এর সন্তান। স্রষ্টা চাইলে আমার আর স্থান টাও উল্টো হতে পারতো। আমরা ভুলে যাই সব।অনেক অহংকার আমাদের। গরীব দের মানুষ ভাবিনা। কখনও তাদের গায়ে হাত তুলি। কাছে আসলে রুমাল নাকে দিই।আমাদের ভাব ভঙ্গি এমন যে আজ আমাদের যা ভালো পজিশন এর ক্রেডিট আমাদের.... 🤔🤔🤔🤔🤔

কেমন হয়েছে জানাবেন কিন্তু
আর হ্যাঁ এই যে আপনাকেই বলছি
ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট পাঠাতে কিন্তু ভুলবেন না
ধন্যবাদ সবাইকে

দেশে ৩ কোটি অবৈধ স্মার্টফোন বন্ধের প্রক্রিয়া শুরু
[ বিস্তারিত NEWS মেনুতে ]... Read More>>

রাশিয়ায় চীনা নাগরিক প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা
... Read More>>

ক্যাসিনোকাণ্ড ও বিদেশে অর্থ পাচার: সিঙ্গাপুর যাচ্ছে দুদক টিম
... Read More>>

ভাল লাগলো এখানে জয়েন করে... Read More>>

আমি বিমুহিত এমন সুন্দর শোসাল সাইট পেয়ে। ... Read More>>

Milimishi is very unique company I can learn from here More things everybody can try ... Read More>>

18-Feb-2020 তারিখের কুইজ
(অংশগ্রহণ করেছেন: 4722+)
প্রশ্নঃ পদ্মা সেতুর ফলে প্রত্যক্ষভাবে প্রায় ৪৪,০০০ বর্গ কিঃমিঃ বা বাংলাদেশের মোট এলাকার ২৯% অঞ্চলজুড়ে ৩ কোটিরও অধিক জনগণ প্রত্যক্ষভাবে উপকৃত হবে। বরিশালসহ পুরো দক্ষিণ অঞ্চলের সাথে রাজধানীর পরিবহণ ব্যায় ও সময় কমে আসবে। রেল, গ্যাস, বৈদ্যুতিক লাইন এবং ফাইবার অপটিক কেবল সম্প্রসারণের ব্যবস্থা রয়েছে। এই সেতুর ফলে দেশের জিডিপি উল্লেখ যোগ্য হারে বৃদ্ধি পাবে। পদ্মা সেতুর দৈঘ্য কত?
(A) ৬.১৫ কি. মি.
(B) ৪.৮ কিমি
(C) ৯.৫০ কি. মি.